কেএফসি(KFC) স্টাইলে ফ্রাইড চিকেন তৈরির রেসিপি

বাচ্চা থেকে বড় ফাস্ট ফুড বা মুখরোচক খাবার সকলেই ভালোবাসেন। বিশেষ করে সন্ধ্যের চায়ের সাথেই যদি মেলে KFC স্টাইল মুচমুচে ফ্রাইড চিকেন, তাহলে তো জিভে জল চলে আসার জোগাড় হয়। কিন্তু প্রতিদিন তো আর একগাদা টাকা খরচ করে ফাস্টফুড খাওয়া যায় না তাছাড়া প্রতিদিন চিকেন খেতেও ভালো নাই লাগতে পারে। তাই আজ আমরা আপনাদের জন্য নিয়ে হাজির হয়েছি KFC স্টাইলে মুচমুচে ফ্রাইড চিকেন তৈরির রেসিপি

KFC স্টাইল মুচমুচে ফ্রাইড চিকেন তৈরির জন্য প্রয়োজনীয় উপকরণঃ

চিকেন মেরিনেট করতে লাগবেঃ

চিকেন – এক কেজি

আদা,রসুন বাটা একসাথে -দেড় টেবিল চামচ

সয়া সস – দেড় টেবিল চামচ

মরিচ গুঁড়া – দেড় চা চামচ

গোল মরিচ গুঁড়া – ১ চা চামচ

লবন – স্বাদ মতো

কোটিং এর জন্য লাগবেঃ

লিকুইড দুধ – এক কাপ

সিরকা/লেবুর রস -১ টেবিল চামচ

ডিম – এক টা

ময়দা – দুই কাপ

কর্ণ ফ্লাওয়ার – চার টেবিল চামচ

মরিচ গুঁড়া – এক চা চামচ

গোল মরিচ গুঁড়া – আধা চা চামচ

লবন – স্বাদ মতো

ভাজার জন্য তেল- পরিমাণমতো

KFC স্টাইল মুচমুচে ফ্রাইড চিকেন তৈরির পদ্ধতিঃ

চিকেন মাঝারি সাইজে টুকরো করে কেটে ভালো ভাবে ধুয়ে পানি ঝরিয়ে নিয়ে উল্লেখিত সবগুলো উপকরণ ভালো ভাবে মিশিয়ে দুই ঘণ্টার মতো মেরিনেট করে রাখবেন।(KFC স্টাইলে ফ্রাইড চিকেন স্কিন সহ বানানো হয়, আমি স্কিন ছাড়া বানিয়েছি) একটা পাত্রে নরমাল তাপমাত্রার লিকুইড দুধের সাথে সিরকা মিশিয়ে পনেরো মিনিটের মতো ঢেকে রাখলে বাটার মিল্ক তৈরি হয়ে যাবে।পনেরো মিনিট পর বাটার মিল্কের সাথে একটা ডিম ভালো ভাবে ফেটিয়ে মিশিয়ে নিবেন।

এবার অন্য একটা পাত্রে তেল ছাড়া বাকি সবগুলো শুকনো উপকরণ (ময়দা,কর্ণ ফ্লাওয়ার, মরিচ গুঁড়া, গোল মরিচ গুঁড়া, লবন) মিশিয়ে নিবেন।

এবার মেরিনেট করে রাখা চিকেনের টুকরো একটা নিয়ে ময়দার মিশ্রণ হাত দিয়ে চেপে যতটুক সম্ভব লাগিয়ে হালকা ঝাঁকিয়ে নিয়ে বাটার মিল্ক+ডিমের মিশ্রণে ডুবিয়ে তুলে নিয়ে আবারো ময়দার মিশ্রণে কোট করে অতিরিক্ত ময়দা ঝেড়ে ফেলে একটা প্লেটে রাখবেন।একই ভাবে সবগুলো কোট করে নিবেন।

কড়াইয়ে পর্যাপ্ত পরিমাণে তেল দিয়ে ভালো ভাবে গরম হলে চুলার আঁচ মিডিয়াম লোতে রেখে চিকেন গুলো উল্টে পাল্টে ভেজে নিবেন।

Leave a Comment